Real Time True News

স্কুলের ইউনিফর্ম যখন স্কার্ট ……..

বিএনএ, বিশ্বডেস্ক : স্কুলের ইউনিফর্ম স্কার্ট। তাই স্কার্ট পরেই স্কুলে আসতে বাধ্য ছাত্রীরা। কিন্তু ডেস্কে বসে ক্লাস করার সময় সেই স্কার্ট্ উঠে গেলে তা দৃষ্টি এড়াতোনা শিক্ষকের। তিনি সযত্নে পকেট থেকে মোবাইল ফোন বের করে সবার অজান্তে  ভিডিও করে নিতেন। দু’একটা নয়, তিন বছর ধরে ১৬০টি এমন অশ্লীল ভিডিও করেছেন ওই শিক্ষক।  তা ছিল ২০১৫ সালের এপ্রিল থেকে ২০১৮ সালের জুন মাস পর্য্ন্ত।

সিঙ্গাপুরের একটি স্কুলের এই ঘটনা সামনে এনেছে চ্যানেল নিউজ এশিয়া। গত ২৩ জুন সিঙ্গাপুরের আদালত তাকে দোষী সাব্যস্ত করেছে। আগামী জুলাই মাসে সাজা ঘোষণা হবে। চ্যানেল নিউজ এশিয়ার রিপোর্ট অনুযায়ী, ওই শিক্ষকের বিরুদ্ধে নারীদের অজান্তে তাদের জনসমক্ষে অসম্মান করা এবং অশ্লীল ভিডিও বানানোর অভিযোগ প্রমাণিত হয়েছে।

তবে, সামাজিক নিরাপত্তার স্বার্থে ছাত্রীদের নাম এবং স্কুলের নাম গোপন রাখা হয়েছে। নিউজ এশিয়ার প্রতিবেদনে বলা হয়েছে। ২০১৫ সালে স্কুলের মোট ১৫টি অনুষ্ঠানে আট জন ছাত্রীর ভিডিও তোলে।

২০১৬ সালের প্রথম পর্বে আরো আট ছাত্রীর ভিডিও মোবাইলবন্দি করে ওই শিক্ষক। ২০১৭ সালে সংখ্যাটা আরো বেড়ে যায়। ৩২ জন ছাত্রীর ১০৫টি ভিডিও তোলেন ওই শিক্ষক। ২০১৮ সালের জুলাই পর্যন্ত ৩৬টি অনুষ্ঠানে ৩৯টি ভিডিও তোলা হয়।

পুলিশ বলেছে, কোনো ভিডিওই দীর্ঘ নয়। সবকটিই খুব বেশি হলে ১০-১৫ সেকেন্ডের। সেগুলি জুড়েই অশ্লীল ছবি বানাচ্ছিল ওই ব্যক্তি। শুধু তাই নয়, মোবাইল ফোন ঘেঁটে দেখা গিয়েছে তার এক আত্মীয়েরও ভিডিও তুলেছিল সে। একটি শপিংমলে একজন অচেনা মহিলার ভিডিও মিলেছে তার ফোনে।

সম্পাদনায় : আবির হাসান